শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ০৩:০৮ পূর্বাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English

চট্টগ্রাম নগরীতে বিকাশ ব্যবসায়ী খুনের কিনারা করল সিআইডি।
মোঃবিল্লাল হোসেন, চট্টগ্রাম : / ১৮ বার
আপডেট : শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০

নগরীর পাহাড়তলী থানা এলাকায় ৯ দিন আগে সংঘটিত বিকাশ এজেন্ট খুনের ঘটনায় জড়িত প্রধান আসামি আব্দুর রহমানকে গতকাল শুক্রবার রাতে গ্রেফতার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। এর আগে গত ১৫/১০/২০২০ অক্টোবর নগরের পাহাড়তলী থানার অলংকার আলিফ হোটেল এলাকা থেকে বিকাশ এজেন্ট বিজয় কুমার বিশ্বাসের (৩২) বস্তাবন্দী লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় ভিক্টিমের ভাই বাদী হয়ে পাহাড়তলী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছিলেন। আব্দুর রহমানকে গ্রেফতারের পর আজ শনিবার ২৪/১০/২০২০ অক্টোবর দুপুরে নগরের দামপাড়া পুলিশ লাইনে সংবাদ সম্মেলন করেছে সিআইডি। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা সিআইডির পরিদর্শক মিজানুর রহমান জানান, ইপিজেড থানাধীন নেভী ওয়েল ফেয়ার মার্কেটে ‘চাঁদনী এন্টারপ্রাইজ ও গিফট শপ’ নামে একটি দোকান ছিল নিহত বিজয় কুমার বিশ্বাসের। একই মার্কেটের দ্বিতীয় তলায় আসামি আব্দুর রহমানের ‘মের্সাস রাইড এন্টারপ্রাইজ ও হাওলাদার এন্টারপ্রাইজ’ নামে দুটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান আছে। একই ভবনে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান থাকায় বিজয় ও রহমানের মধ্যে বন্ধুত্ব গড়ে উঠে। ৮ মাস আগে ৭ হাজার টাকা মুনাফার ভিত্তিতে আব্দুর রহমানকে দেড় লাখ টাকা ধার দেন বিজয়।

‘দীর্ঘদিন মুনাফার টাকা ফেরত না দেয়ায় আসল টাকা ফেরত চান বিজয়। বারবার পাওনা টাকা ফেরত চাওয়ায় বিজয়কে খুনের পরিকল্পনা করেন আব্দুর রহমান। পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী গত ১৪/১০/২০২০ অক্টোবর বিজয় নিজের প্রতিষ্ঠানে ডেকে নিয়ে প্রথমে শ্বাসরোধ করে ও পরে গলায় ইন্টারনেটের তার পেঁচিয়ে খুন করেন রহমান। পরে বস্তাবন্দি করে বিজয়ের লাশ পাহাড়তলী থানা এলাকার আলিফ গলিতে ফেলে যান রহমান।’ বলেন সিআইডির পরিদর্শক মিজানুর রহমান।
তিনি আরও বলেন, লাশ গুম করার কাজে রহমানকে সহযোগিতা করেন নিজ দোকানের কর্মচারী নাসির উদ্দিন। বিজয় খুনের মামলায় নাসির উদ্দিনকেও আসামি করা হয়। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান সিআইডি’র কর্মকর্তা মিজানুর।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরির আরো সংবাদ