রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০৮:০৩ অপরাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়ায় দীর্ঘ যানজট, দুর্ভোগ চরমে
এ.বি.খান বাবু বার্তা প্রধান / ৮৬ বার
আপডেট : রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০

পদ্মা সেতুর কাজের সুবিধার জন্য রাতে শিমুলিয়া-কাঠাঁলবাড়ি ঘাটে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথ এলাকায় সৃষ্টি হয়েছে দীর্ঘ যানজটের।

বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) সকালে গিয়ে এ চিত্র দেখা দেখা গেছে।
দিনের পর দিন ঘাট এলাকায় পারের অপেক্ষায় পণ্য ও যাত্রীবাহী গাড়ি। সাধারণ যাত্রী-শ্রমিক, চালক ও ব্যবসায়ীরা সীমাহীন দুভোর্গে পড়েছেন। আর পণ্যবাহী ব্যবসায়ীরা তাদের কাঁচামাল নষ্ট হওয়ার আশঙ্কায় রয়েছেন।

ঘাট কর্তৃপক্ষ জানায়, গত ৫দিন ধরে রাতের পর রাত শিমুলিয়া-কাঠাঁলবাড়ি নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথে দেখা দিয়েছে যানবাহনের দীর্ঘ সারি। এতে জরুরি যানবাহন,অ্যাম্বুলেস পরিবহন, ছোট যানবাহন অগ্রাধিকার দিতে গিয়ে জমে যাচ্ছে পণ্যবাহী ট্রাক ও কাঁচা সবজিবাহী ছোট ট্রাকও। অতিরিক্ত যানবাহনে দুই টার্মিনাল ও ঘাট ভরে যাওয়ার সেখান থেকে ৭ কি. মি. দূরে উথুলী সংযোগ মোড় থেকে আরিচা থানা পযর্ন্ত ৪ কি. মি. এলাকা জুড়ে সারি বদ্ধ করে রাখা হচ্ছে।

পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌপথের নাব্যতা ধরে রাখতে চারটি ড্রেজার দিয়ে ড্রেজিং কাজ চলমান রয়েছে। পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌরুটে রাতের দিকে ১২টি ফেরি চলাচল করলেও দিনে ১৬টির মধ্যে ১৫টি ফেরি ও ২২টি লঞ্চ চলাচল করছে। দিনের পর দিন পারের অপেক্ষায় শ্রমিক ও ব্যবসায়ীদের দুর্ভোগ চরমে পৌঁছেছে।

এদিকে, সকাল থেকে মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি নৌপ‌থে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে সংশ্লিষ্ট ঘাট কর্তৃপক্ষ। নাব্য সংকটে সকাল সাড়ে ৭টা থেকে ফেরি চলাচল বন্ধ করে তারা।
শিমুলিয়া ঘাটের বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন করপোরেশনের (বিআইডব্লিউটিসি) ব্যবস্থাপক সাফায়েত আহমেদ জানান, নাব্য সংকটে সকাল সাড়ে ৭টা থেকে এ নৌপথে ফেরি চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে। সকাল ৬টার দিকে কলমিলতা ফেরি যাত্রী ও যানবাহন নিয়ে ছেড়ে গিয়েছিল। তবে পথিমধ্যে চ্যানেলে নাব্য সংকট হওয়ায় আবার ঘাটে ফিরে এসেছে। বর্তমানে প্রায় চার শতাধিক গাড়ি পারের অপেক্ষায় আছে শিমুলিয়া ঘাটে।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরির আরো সংবাদ