শুক্রবার, ২৩ এপ্রিল ২০২১, ০৫:৩৭ পূর্বাহ্ন

  • বাংলা বাংলা English English

নড়াইলে বোনকে মাদ্রাসায় পৌছে দিয়ে বাড়ি ফেরার পথে ১০ বছরের শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টা
উজ্জ্বল রায়, জেলা প্রতিনিধি নড়াইল / ৪৮ বার
আপডেট : শুক্রবার, ২৩ এপ্রিল ২০২১

৫ বছরের বোনকে স্থানীয় মাদ্রাসায় পৌছে দিয়ে বাড়ি ফেরার পথে বড়ো বোন ১০ বছরের শিশুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। শিশুটিকে নড়াইল সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার প্রথমিক পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। ন্যাক্কারজনিক এ ঘটনাটি ঘটেছে রোববার (২১মার্চ) বিকেলে নড়াইল পৌরসভার ভাটিয়া এলাকায়।

ভূক্তভোগির মা মাজেদা বেগম জানান, রোববার (২১মার্চ) বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে বড়ো মেয়ে (ভূক্তভোগি শিশু) ৫ বছরের ছোট মেয়েকে পার্শ্ববর্তী বাদামতলা মক্তবে পৌছে দিয়ে বাড়ি ফিরছিল। বাড়ির কাছাকাছি আসলে প্রতিবেশী মনতাজ মিয়া (৫২) তাকে জোরপূর্বক তার ঘরে নিয়ে শ্লীলতাহানীর চেষ্টা চালায়। এ সময় মনতাজের বাড়িতে কেউ ছিল না। এ ঘটনার পর স্থানীয় মাতব্বর পাখি মোল্যাকে জানাই এবং সবার পরামর্শে হাসপাতালে ভর্তি করি।
সদর হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা. শেখ রাশেদ রানা বলেন, প্রাথমিকভাবে পরীক্ষা করে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়েছে, আলামত পাওয়া যায়নি। তবে এটি নিশ্চিতের জন্য প্যাথলজিক্যাল পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হবে।
অভিযুক্ত ব্যক্তি জানান আমাকে ফাঁসানোর জন্য ঘৃণিত কাজ করেছে। আমি যদি দোষী হতাম তাহলে বাড়ি থেকে পলাতাম কিন্তু তার করিনি। তারা আমাকে বেধড়ক মারধর করছে। আমার মাজার হাড় ভেঙে গেছে।
সদর থানার এসআই রেজাউল বলেন, বিষয়টি জানার পর হাসপাতাল গিয়ে ভূক্তভোগি ও তার পরিবারের সাথে কথা বলেছি। অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হবে বলে জানান।
সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ ইলিয়াস হোসেন বলেন,বিষয়টি আমরা গুরত্বের সাথে নিয়েছি। মেয়েটির চিকিৎসা চলছে। ডাক্তারি পরিক্ষার রিপোর্ট পেলে জানা যাবে আসল ঘঁনা। তারপর প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহন করা হবে।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ ক্যাটাগরির আরো সংবাদ